শুক্রবার, ২২ অক্টোবর ২০২১, ১২:২২ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
২৪ ঘন্টার মধ্যে দাউদকান্দি থানায় দায়েরকৃত হত্যা মামলার প্রধান আসামীকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব ঈদে মিলাদুন্নবী উপলক্ষে বেনাপোল স্থলবন্দরে  আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ মুরাদনগরে সিএনজি চালক হত্যার ঘটনায় আরো তিনজন গ্রেপ্তার বাঞ্ছারামপুরে শেখ রাসেল দিবস পালিত কুমিল্লা সিটির ৫নং ওয়ার্ড উপনির্বাচনে আনোয়ার হোসেন মিঠু’র গণসংযোগ বার্ডের উদ্যোগে শেখ রাসেল দিবস উদযাপন ও গৃহ প্রদান    কুমিল্লা শিক্ষাবোর্ডে শেখ রাসেল দিবস পালন ও আলোচনা সভা কুমিল্লায় ঘটনায় সাত মামলায় ৮০০ আসামী শার্শার লক্ষণপুর কওমী হাফেজিয়া মাদ্রাসা এতিমখানা ও মসজিদের নতুন ভবনের শুভ উদ্বোধন শার্শায় যথাযোগ্য মর্যাদায় শেখ রাসেলের জন্মদিন পালিত সম্প্রীতি বিনষ্টকারীদের প্রতিহতের ডাক কুমিল্লাবাসীর চিত্রাংকনে জেলা পর্যায়ে সাফল্য অর্জন করেছে মুরাদনগরের শাফি হোমনায় যুবলীগ নেতা হত্যা মামলার আসামী কিনলেন নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন মুরাদনগরে সম্প্রীতি সমাবেশ ও শান্তির শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত মুরাদনগরে চালক হত্যার ঘটনায় দুইজন গ্রেফতার
মুরাদনগরে ব্যবসায়ীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা চেষ্টায় একজন আটক

মুরাদনগরে ব্যবসায়ীকে ছুরিকাঘাতে হত্যা চেষ্টায় একজন আটক

সফিকুল ইসলাম, মুরাদনগর (কুমিল্লা) প্রতিনিধি: কুমিল্লার মুরাদনগরে জাহাঙ্গীর সওদাগর (৫৫) নামে এক ব্যবসায়ীকে ছুরিকাঘাত করে হত্যার চেষ্টা করেছে স্থানীয় সিএনজি চালক ইসমাইল মিয়া (৫০)।

 

শনিবার (১৮ সেপ্টেম্বর) রাতে উপজেলার বাঙ্গরা বাজার থানা সংলগ্ন মুন্সি বাড়ি জামে মসজিদ থেকে মাগরিবের নামাজ শেষ নিজ বাড়ি ফিরার পথে এ ঘটনা ঘটে। আহত জাহাঙ্গীর সওদাগর বাঙ্গরা গ্রামের মৃত হাজী শুক্কুর আলীর ছেলে।

 

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সিএনজি চালক ইসমাইল তার ২য় স্ত্রী নাছরিনকে বিবাহের পর থেকে কোন ধরনের ভরণপোষণ দিতো না। স্বামীর কাছ থেকে কোন প্রকার সহযোগীতা না পেয়ে পাশের বাড়ীর জাহাঙ্গীর সওদাগরের বাড়ীতে গৃহকর্মীর কাজ করতো নাছরিন। এরই মধ্যে চালক ইসমাইল ও নাছরিনের ঘরে দুইটি কন্যা ও একটি ছেলে সন্তান জন্ম নেয়। তাতেও মন গলেনি ইসমাইলের। কোন প্রকার ভরণপোষণ দেয়াতো দুরের কথা উল্টো প্রতিনিয়ত শারিরীক নির্যাতনের শিকার হতো ওই গৃহবধূকে।

 

একপর্যায় নিজের পাশাপাশি দুই মেয়েকেও জাহাঙ্গীরের বাড়ীতে কাজ করতে নিয়ে যেতো সে। কয়েক বছর আগে দুই মেয়ে স্বাবলক হলে ভাল পাত্র দেখে নিজ খরচে বিয়ে দিয়ে দেন গৃহকর্তা জাহাঙ্গীর। এতে স্ত্রীর সাথে জাহাঙ্গীরের পরকীয়া সম্পর্ক আছে বলে সন্দেহ করে স্বামী ইসমাইল।  এতে করে সে স্ত্রীর উপর আরও বেশী নির্যাতন শুরু করে।  মাদকাসক্ত স্বামীর নির্যাতন সইতে না পেরে গত দু’মাস আগে কাউকে কিছু না বলে স্বামীর বাড়ী ছেড়ে চলে যায় ওই গৃহবধূ। তাকে ছেড়ে চলে যাওয়ার পেছনে গৃহকর্তা জাহাঙ্গীরের হাত আছে বলে সন্দেহ করে স্বামী ইসমাইল।

 

সেই সন্দেহের বশবর্তী হয়ে শনিবার সন্ধ্যায় বাঙ্গরা বাজার থানা সংলগ্ন মুন্সি বাড়ি জামে মসজিদ থেকে মাগরিবের নামাজ শেষে বাড়ি ফেরার পথে জাহাঙ্গীর সওদাগরের উপর বোরকা পরে হামলা চালায় ইসমাইল। একপর্যায় হাতে থাকা ধারালো ছুড়ি দিয়ে জাহাঙ্গীরের উপর আঘাত করতে থাকে সে। জাহাঙ্গীর আর্তচিৎকার শুনে পাশের বাড়ির লোকজন এগিয়ে আসলে দৌড়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে ইসমাইল। এসময় স্থানীয় লোকজন তাকে ছুড়িসহ আটক করে বাঙ্গরা বাজার থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে।

 

পরে স্থানীয়রা জাহাঙ্গীর সওদাগরকে ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করে আশংকাজনক অবস্থায় ঢাকার একটি বেসরকারী হাসপাতালে প্রেরণ করে।

 

এ বিষয়ে বাঙ্গরা বাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোঃ কামরুজ্জামান তালুকদার জানান, এ ঘটনায় হামলাকারী ইসমাইলকে গ্রেপ্তার করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। পাশাপাশি ঘটনায় ব্যবহৃত ছুড়িটি উদ্ধার করা হয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




themesba-zoom1715152249
© কুমিল্লা দর্পণ। সর্বসত্ব সংরক্ষিত
ডিজাইন ও ডেভেলপে Host R Web