রবিবার, ২০ Jun ২০২১, ০৩:০৩ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
কুমিল্লায় অস্ত্রসহ শীর্ষ সন্ত্রাসী রেজাউল গ্রেফতার স্বাস্থ্যবিধি নিশ্চিত করতে কুমিল্লায় ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান কুমিল্লায় গুলিভর্তি রিভলবারসহ ৯ মামলার আসামীকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব কুমিল্লায় দ্বিতীয় ধাপে ঘর পাবেন ১,২৯১টি ভূমিহীন পরিবার কুমিল্লায় সড়ক দুঘর্টনায় ৩ জনের মৃত্যু পিতার সাথে অভিমান করে মেয়ের আত্মহত্যা হোমনায় জেলেদের মাঝে সেলাই মেশিন ও বেড় জাল বিতরণ কুমিল্লায় নকল বিটুমিন তৈরি কারখানায় অভিযান, মালিকসহ আটক ২ কুমিল্লায় সিনোভ্যাক ভ্যাকসিন পৌঁছেছে চৌদ্দগ্রামে ইয়াবাসহ নারী আটক এক বছর পরীক্ষা না দিলে বিরাট ক্ষতি হয়ে যাবে না-দীপু মনি পরিবহন থেকে চাঁদা আদায়ের অভিযোগে র‍্যাবের হাতে আটক ২ তিতাস উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স পরিদর্শন করেন অতিরিক্ত সচিব কুমিল্লায় ব্যবসায়ীকে হত্যা চেষ্টার পর লুঙ্গি ড্যান্স করা মেহেদী গ্রেফতার মুরাদনগরে মাদক বিরোধী সমাবেশ
দপ্তরির বিরুদ্ধে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ

দপ্তরির বিরুদ্ধে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ

নিউজ ডেস্ক।। পাবনার চাটমোহর উপজেলার নেংড়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরি কাম নৈশ প্রহরী কর্তৃক ওই স্কুলের ৫ম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত সোমবার (৩১ মে) বিকেলে।

 

এ ব্যাপারে ওই ছাত্রীর নানী নেংড়ী গ্রামের রাজিয়া বেগম চাটমোহর খানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। মঙ্গলবার (১ জুন) রাজিয়া বেগম আরেকটি অভিযোগ করেছেন চাটমোহর উপজেলা চেয়ারম্যান ও শিক্ষা কমিটির সভাপতি আঃ হামিদ মাস্টারের কাছে।

 

অভিযোগে জানা যায়, নেংড়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দপ্তরি কাম নৈশ প্রহরী আরিফুল ইসলাম ওরফে শরিফুল গত সোমবার স্কুলের ৫ম শ্রেণির এক ছাত্রীকে (১১) কিছু কাগজপত্র স্বাক্ষর করার কথা বলে তার সাথে স্কুলের শিক্ষক কামরুল ইসলামের কাছে যেতে বলে। বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে ওই ছাত্রীকে নিয়ে আরিফুল কচুগাড়ি গ্রামে কামরুল মাস্টারে বাড়িতে রওনা দেয়। পথিমধ্যে ফাঁকা স্থানে দপ্তরি ওই ছাত্রীকে জোরপূর্বক একটি পাটক্ষেতে নিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালায়।

 

এসময় মেয়েটির চিৎকারে পথচারীরা এগিয়ে এলে পালিয়ে যায় আরিফুল ওরফে শরিফুল। সোমবার রাতে ওই ছাত্রীর নানী চাটমোহর থানায় ও মঙ্গলবার উপজেলা চেয়ারম্যানের নিকট অভিযোগ দায়ের করেছেন।

 

উপজেলা চেয়ারম্যান আঃ হামিদ মাস্টার সাংবাদিকদের বলেন, অভিযোগ পাওয়ার পরই বিষয়টির তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য উপজেলা শিক্ষা অফিসারকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। চাটমোহর থানার ওসি মোঃ আমিনুল ইসলাম জানান, সোমবার রাতে অভিযোগ পাওয়ার পরই তদন্ত শুরু করা হয়েছে। তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




themesba-zoom1715152249
© কুমিল্লা দর্পণ। সর্বসত্ব সংরক্ষিত
ডিজাইন ও ডেভেলপে Host R Web