শনিবার, ১০ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৫৬ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
শার্শায় বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল লতিফের ইন্তেকাল, রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় দাফন  কুমিল্লা ইপিজেডের নাসা কোম্পানীর ছাদ ধ্বসে পড়ে এক শ্রমিক নিহত কুমিল্লায় মাহবুবের মাছের আঁশ রপ্তানি হচ্ছে চীন ও জাপানে চৌদ্দগ্রামের চান্দশ্রী থেকে ৬০০ বোতল ফেন্সিডিলসহ একজন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার শার্শা সীমান্তে ফেনসিডিলসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক শার্শার ডিহিতে দুই মেম্বার সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে কমপক্ষে ২২ জন আহত  কুমিল্লায় প্রাইভেটকারের চাপায় বৃদ্ধের মৃত্যু দেবিদ্বারে শিশু ফাহিমা হত্যাকান্ডের দায়ে পিতাসহ ৫ জন গ্রেফতার কুমিল্লায় র‌্যাবের অভিযানে মাদকসহ চারজন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার শ্রদ্ধা-ভালোবাসায় চির বিদায় নিলেন আফজল খান নাঙ্গলকোটে উপ-সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার ডা. কাজী শাহজাহান এর বিদায় সংবর্ধনা কুমিল্লায় এইচএসসি পরীক্ষার্থীরা পাবে ফাইজার এর ৪১ হাজার টিকা রেলের প্রেসিডেন্ট সেলুনে একদিন গ্রন্থ সমালোচনা: মোবাশ্বের আলীর সাহিত্য চেতনা গুঁড়িগুঁড়ি বৃষ্টিতে তীব্র শীতের আভাস
করোনা মহামারী ও রাশিয়ার ভ্যাক্সিন প্রসঙ্গে কিছু কথা

করোনা মহামারী ও রাশিয়ার ভ্যাক্সিন প্রসঙ্গে কিছু কথা

আফসানা আফরোজ জুঁই।।
বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে সবচেয়ে আলোচিত বষয়টি হচ্ছে করোনার ভ্যাক্সিন। সবাই অপেক্ষায় আছে ভ্যাক্সিন কবে আসবে। করোনার জন্যে আমাদের স্বাভাবিক জীবন বিপর্যস্ত হয়ে আছে। লাখ লাখ মানুষ আক্রান্ত হচ্ছে, প্রতিদিন বহু মানুষ মারা যাচ্ছে করোনায়। আমাদের দেশের স্কুল কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়গুলো খুলতে পারছে না। এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা হচ্ছে না, বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে বড় রকমের সেশন জট তৈরি হতে যাচ্ছে। দীর্ঘ লক ডাউনে মানুষের শারীরিক ও মানসিক নানা সমস্যা দেখা দিচ্ছে।

 

 

এমতবস্থায় সবচেয়ে প্রতীক্ষিত জিনিস হলো করোনার ভ্যাক্সিন। একমাত্র ভ্যাক্সিনই পারে আমাদের স্বাভাবিক জীবনে ফিরিয়ে দিতে।বিশ্বের বিভিন্ন দেশেই ভ্যাক্সিন আবিষ্কারের জন্য চেষ্টা করে যাচ্ছে। এদের অনেক গুলোই দ্বিতীয় ধাপ পার করে গেছে, তৃতীয় ধাপ সফল হলে সে ভ্যাক্সিন মানবদেহে নেওয়ার উপযোগী বলে বিবেচিত হবে। এরই মধ্যে রাশিয়া প্রথম করোনা ভ্যাক্সিন আবিষ্কারের দাবী করছে। তা নিয়ে আমরা সবাই অনেক উচ্ছ্বসিত, অবশেষে হয়তো আমাদের সেই প্রতীক্ষার অবসান ঘটবে। তবে রাশিয়ার আবিষ্কৃত ভ্যাক্সিনটি ঠিক কতটুকু গ্রহনযোগ্য তা নিয়ে প্রশ্ন থেকেই যায়। কারণ কোনো ভ্যাক্সিন আবিষ্কারের পর তার গ্রহণযোগ্যতা বোঝা যায় প্রকাশিত জার্ণালের মাধ্যমে। ভ্যাক্সিনের সবকিছু স্পষ্ট ভাবে জার্ণাল আকারে প্রকাশ করা হয় যাতে করে সারা বিশ্বের সকল বিজ্ঞানী ও মানুষেরা সেই ভ্যাক্সিন সম্পর্কে জানতে পারে এবং নিশ্চিন্তে সেই ভ্যাক্সিন গ্রহণ করতে পারে। রাশিয়া তাদের আবিষ্কৃত ভ্যাক্সিন নিয়ে কোনো জার্ণাল এখন পর্যন্ত প্রকাশ করেনি। তাই আমাদের মনে একটা প্রশ্নই থেকে গেলো তাদের ভ্যাক্সিন নিয়ে।

সম্প্রতি ঘোষণা করা হয়েছে অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটির আবিষ্কৃত কোভিড ১৯ মানবদেহের জন্যে নিরাপদ ও রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। এছাড়াও সারাবিশ্বে সর্বশেষ তথ্যানুযায়ী এখন পর্যন্ত ১৭৩ টি উদ্যোগ চলছে করোনার ভ্যাক্সিন বানানোর। ১১ টি সেকেন্ড ট্রায়ালে চলছে আর ৩ টি টিকা এখন থার্ড ট্রায়ালে আছে। তৃতীয় ধাপ সফলভাবে পার করে এলে হয়তো আমাদের বহুল প্রতীক্ষার অবসান ঘটবে আর আবার আমরা ফিরে যেতে পারবো আমাদের স্বাভাবিক জীবনে।

লেখকঃ উন্নয়নকর্মী।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




themesba-zoom1715152249
© কুমিল্লা দর্পণ। সর্বসত্ব সংরক্ষিত
ডিজাইন ও ডেভেলপে Host R Web